তিথির নীল তোয়ালে-পর্ব-(১৬) হুমায়ূন আহমেদ

আচ্ছা আচ্ছাভুলে গিয়েছিলামআপনি শুনতে চাইলে খাওয়ার পর খানিকক্ষণ ... আরেকদিন শুনবআজ আমার বাশি শুনতে ইচ্ছা করছে নাজি আচ্ছাআপনি শুয়ে পড়ুনআপনার খাওয়া শেষ হলেই শুয়ে পড়বঢাকার কাজ কর্ম শেষ হয়েছে ? ‘জি নামন্ত্রী সাহেবের সঙ্গে এখনাে দেখা করতে পারিনি। 

তিথির নীল তোয়ালেচেষ্টা করছেনজিউনার পিএ আমাকে টেলিফোন করে সময় দেবেনমন্ত্রীরা খুব ব্যস্ত থাকেনবললেই সময় দিতে পারেন নাআমি আপনাদের টেলিফোন নাম্বার দিয়ে এসেছি। 

তিথি বলল, আমাদের টেলিফোন নাম্বার লােকজনদের দিয়ে বেড়াবেন নাটেলিফোন নাম্বার হল খুবই ব্যক্তিগত ব্যাপার। 

আমি শুধু উনাকেই দিয়েছিআর কাউকে না। 

তিথি খাওয়া শেষ না করেই উঠে পড়লখেতে ভাল লাগছে নাসে এখন নিজের ঘরে দরজা বন্ধ করে খানিকক্ষণ শুয়ে থাকবেঠাণ্ডা মাথায় ভাববে বাবাকে পুরাে ব্যাপারটা কি ভাবে বলা যায়যখন সমস্ত কথাবার্তা গােছানাে শেষ হবে তখন সে বাবার ঘরে যাবেতিনি জেগে থাকলে তাকে তখনি বলবেজেগে না থাকলে ভােরবেলা বলবে

তিথির নীল তোয়ালে-পর্ব-(১৬) হুমায়ূন আহমেদ

সে নিজে ঘুমুবে নাসারারাত ভাববেদরকার হলে পুরো ব্যাপারটা কাগজে গুছিয়ে লিখবেভােরবেলা নিজের মুখে কিছু না বলে কাগজটা ধরিয়ে দেবেনরম গলায় বলবে এখানে কিছু জরুরি কথা লেখা আছেতুমি এখন পড়বে নাঅফিসে নিয়ে যাওঅফিসে গিয়ে ঠাণ্ডা মাথায় পড়বেতারপর যদি আমাকে কিছু বলতে চাও বাসায় টেলিফোন করবে আমি বাসাতেই থাকব। 

তিথি নিজের ঘরে ঢুকলঘরে বাতি জ্বলছিল বাতি নিভিয়ে দিলপ্রচুর কাজ পড়ে আছে রান্নাঘর কিছুই গােছানাে হয় নিঘরে এখন ঢুকতেই ইচ্ছা করছে না। 

তিথি বিছানায় গড়িয়ে পড়লএত ক্লান্তি লাগছে মাথার নিচে বালিশটা পর্যন্ত টেনে দিতে ইচ্ছে করছে নাতিথি চোখ বন্ধ করল আর তখনি জাফর সাহেবের গলা শােনা গেলভয় পাওয়া গলায় তিনি ডাকছেন তিথি তিথিএরকম অদ্ভুত 

ভঙ্গিতে বাবা তাকে ডাকছেন কেন? তিথি প্রায় ছুটে গেল। 

জাফর সাহেবের ঘরে বাতি জ্বলছেতিনি খাটের মাঝখানে উবু হয়ে বসে আছেনতার ঘুম ভেঙ্গেছে ভয়ংকর দুঃস্বপ্ন দেখেস্বপ্নের ঘাের এখনাে রয়ে গেছেতঁার বুক ধ্বক ধুক করছে। 

বাবা কি হয়েছে? কিছু নাপানি খাবপানি দে। 

তিথি পানি এনে দিল। জাফর সাহেব এক চুমুকে পানি শেষ করে গ্রাস মেয়েকে ফেরত দিতে দিতে বললেন, এক কাজ করলে কেমন হয়রে তিথি

তিথির নীল তোয়ালে-পর্ব-(১৬) হুমায়ূন আহমেদ

 কি কাজ?” 

‘চল কাল দুজনে সিলেট চলে যাইতােরতাে অনেক দিনের ইচ্ছা ছােটমামার চা বাগান দেখবিবাগান দেখা হল। 

চল যাই। 

সকালে ট্রেন আছেট্রেনে যাওয়া যাবে নাঅফিস থেকে ছুটি নিতে হবেরাতের ট্রেনে যাই চল” 

আমি রাজিকাল সব গুছিয়ে রাখব। 

গাধাটাকে কি করবি? কোন গাধা?নুরুজ্জামান। 

আচ্ছাউনাকে বাসা পাহারা দেবার দায়িত্বে রেখে যাব। 

সেটা মন্দ নাতােমার কি শরীর খারাপ ভাবটা একটু কমেছে?” 

ভাত খাবে এনে দেই? আজকের তরকারী তত খারাপ হয় নিমুখে দিতে পারবে। 

ভাত খাব নারে মাভাত ছাড়া অন্য কিছু থাকলে এনে দেস্যাণ্ডউইচ আছেদেব

সঙ্গে এক গ্লাস দূধ দেব?’ আচ্ছা দে” 

জাফর সাহেব বেশ আরাম করেই স্যাণ্ডউইচ খাচ্ছেনতিথি সামনে বসে আছেতিথির খুব মায়া লাগছেতিথি নরম গলায় ডাকল, বাবা

কি রে মা। 

তিথি খানিকটা অস্বস্থি খানিকটা লজ্জা মেশানাে গলায় বললাে, বাবা শােন! আমি যদি নিজের পছন্দের একটা ছেলেকে বিয়ে করতে চাই তাহলে তুমি কি খুব রাগ করবে

জাফর সাহেব খাওয়া বন্ধ করে অবাক হয়ে তাকিয়ে রইলেনতিথি হঠাৎ অসম্ভব লজ্জা পেয়ে গেলসে জানালার দিকে তাকিয়ে বলল, তুমি এমন করে তাকিয়ে আছ কেন

জাফর সাহেব বললেন, তাের পছন্দের কোন ছেলে আছে

আশ্চর্য কাণ্ড ! তুইতাে সেদিনের বাচ্চা মেয়ে” 

বাবা আমি সেদিনের বাচ্চা মেয়ে নাআমি M.Sc পরীক্ষা দিয়ে বসে আছিআমার বয়স এখন ২৪ বৎসর তিন মাস। 

তিথির নীল তোয়ালে-পর্ব-(১৬) হুমায়ূন আহমেদ

জাফর সাহেব বিস্মিত হয়ে বললেন, বলিস কি তাের চব্বিশ হয়ে গেছে? হয়েছে।” ছেলেটা কি করে?” 

এতদিন কিছু করত নাখবরের কাগজে ফ্রীল্যান্স লেখা লিখত দুতিনটা প্রাইভেট টিউশুনি করেএখন অবশ্যি ph.D করতে ফ্রান্সে যাচ্ছেতার ইচ্ছা ছিলআমেরিকা যাবার। 

ছেলের বাবা কি করেন

ছেলের বাবা কি করেন আমি জানি নাকখনাে জিজ্ঞেস করি নিছেলের বাবা কি করেন সেটা কি খুব   জরুরি?। 

জাফর সাহেব চুপ করে রইলেনতিথি বাবার দিকে খানিকটা ঝুঁকে এসে বলল, একটা মেয়ের যখন একটা ছেলেকে ভাললাগে তখন ছেলের বাবা মেয়েটির সামনে থাকে না। 

প্রচ্ছন্ন ভাবে থাকেছেলের বাবার ছায়া থাকে ছেলের মধ্যেআমার খানিকটা ছায়া কি তাের মধ্যে নেই

জানি না, আছে হয়তআচ্ছা বাবা ধর ছেলের বাবা খুবই সামান্য একজন মানুষকোন অফিসের পিওন, কিংবা ধর রিকশাওয়ালাএই অবস্থায় তুমি কি করবে? তুমি কি বলে দেবে না বিয়ে হবে না। 

জাফর সাহেব বললেন, ছেলেটিকে তাের কি খুব পছন্দ

আমি দেখেছি তাকে?একদিন দেখেছতবে তােমার নিশ্চয়ই মনে নেইওর কোন ছবি আছে তাের কাছে ? নিয়ে আয়তাে। 

তিথি লজ্জিত গলায় বলল, তুমি ভেবেছ কি আমাকে? আমি বুঝি ওর ছবি বালিশের নিচে রেখে ঘুমাই? ছবি টবি নেইতিথি এইখানে খানিকটা মিথ্যা বললমারুফের ছবি তার কাছে আছেএকটা না বেশ কয়েকটা ছবি । 

দেখতে কেমন? মােটামুটিতবে এ্যাপােলাে নাবুদ্ধিমান? অবশ্যই বুদ্ধিমানওর নাম কি ? মারুফ। 

তিথির নীল তোয়ালে-পর্ব-(১৬) হুমায়ূন আহমেদ

জাফর সাহেব খুশি খুশি গলায় বললেন, নামটাতাে ভাল মা দিয়ে শুরুযে সব ছেলের নাম মা দিয়ে শুরু হয় তাদের হৃদয় নরম থাকেআমাদের সঙ্গে একটা ছেলে ছিল মাহফুজ নাম, খুব ভাল ছেলে। 

তােমার অদ্ভুত ধরণের কথাবার্তা বন্ধ করতাে বাবা

Leave a comment

Your email address will not be published.