তেঁতুল বনে জোছনা-পর্ব-(২) হুমায়ূন আহমেদ

এই চোখ যে সব জায়গা দিয়ে যায় তার ব্যাপক ক্ষতি করে কিন্তু আশেপাশে তেমন কিছু হয় না। 

তেঁতুল বনে জোছনা

পুস্কুনির সব মাছ ভাইস্যা উঠছেখবর পাইছেন? সেটাই দেখতে এসেছিলামইন্টারেস্টিং তাে বটেইএই জিনিস আমি নিজেও আগে কখনাে দেখি নি। 

মতি গম্ভীর ভঙ্গিতে বলল, এটা আর কিছু নাএটা আল্লাপাকের ঘণ্টাআল্লাপাক ঘন্টার মধ্যে বাড়ি দিয়া আমাদের বলেছেনবান্দা, সাবধান হও। 

আনিস কিছু বলল নাসাইকেল টেনে এগুতে লাগলতার পেছনে পেছনে আসছে মতিএটা মােটামুটি একটা দুর্ঘটনামতি কথা না বলে থাকতে পারে নাহড়বড় করে কথা সে বলতেই থাকবেমতির বয়স ত্রিশ ক্লাস ফাইভ পর্যন্ত পড়াশােনাবিরাটনগরে তার একটা চালাঘর আছে তবু রাতে সে ঘুমায় নান্দাইল রােড ইস্টিশনেএকই সঙ্গে সে নানান কাজকর্ম করে, আবার কিছুই করে না। মাঝে মধ্যে কুলির কাজ করে

যাত্রীদের মালামাল নামায়কিছুদিন গ্রামে এসে থাকেঘরামীর কাজ করেশীতের সিজনে মুড়ি লাডু বানিয়ে ট্রেনে করে বিক্রি করতে চলে যায়গৌরীপুর মােহনগঞ্জকিছুদিন হলােসে জ্বরের একটা বড়ি বানানাের চেষ্টা করছেলালু ফকিরের কাছ থেকে ফর্মুলা জোগাড় হয়েছেফর্মুলা মতাে বড়ি বানিয়ে রােদে শুকাতে দেবার সময় গণ্ডগােলটা হচ্ছেএকটু শুকালেই বড়ি পাউডারের মতাে হয়ে যাচ্ছে বড়ির নামও মােটামুটি ঠিক করা— 

তেঁতুল বনে জোছনা-পর্ব-(২) হুমায়ূন আহমেদ

জ্বরমতি’ 

নিজের নামটা কায়দা করে বড়ির নামের সঙ্গে যুক্ত করে দেয়াযতদিন এই বড়ি থাকবে ততদিন মতির নামও থাকবেএটা কম কথা না। 

বড়ি বানানাে হয়ে গেলে হ্যান্ডবিল ছাপিয়ে গৌরীপুর, নেত্রকোনা, শ্যামগঞ্জ এই লাইনে বিক্রি করতে হবেএই অঞ্চলের লােকদের পেটের ব্যথা বেশিট্যাবলেটে চোখের নিমিষে উড়ে যাবেবিজ্ঞাপনের ভাষাও মােটামুটি ঠিকঠাক 

আসিয়াছে! আসিয়াছে!! জ্বর নাশক জ্বরমতিবড়িএক বড়ি যেমন তেমন 

দুই বড়িতে কাম ভাই ব্রেদার শুনেন শুনেন। 

জ্বরমতির নামএই বড়ি স্বপ্নে প্রাপ্তবড়ির ক্রয় বিক্রয় সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ। 

শুধু হাদিয়া বাবদ পাঁচ টাকাবড়ি সেবনের পরের সাত দিন গােমাংস ভক্ষণ এবং 

স্ত্রী সহবাস সম্পূর্ণ নিষিদ্ধগ্যারেন্টিসহ চিকিৎসা। বিফলে সম্পূর্ণ মূল্য ফেরতমতির ইচ্ছা বড়ির বিষয়টা নিয়ে ডাক্তার সাহেবের সাথে কথা বলে। ডাক্তার সাহেব অতি জ্ঞানী মানুষ, তিনি সমস্যার সমাধান জানবেনবড়িগুলাে পাউডার হয়ে যাচ্ছে কেন এটা তিনি কি আর জানবেন নাডাক্তার মানুষ তাদের কাজ কারবার হলাে বড়ি নিয়ে। 

ডাক্তার সাব। 

মতি চিন্তিত মুখে ডাক্তার সাহেবের দিকে তাকালসে সামান্য হতাশ বােধ করছেডাক্তার সাহেব বলা শুরু করেছেনডাক্তার সাহেবের এই এক অভ্যাসএকবার হুবলা শুরু করলেবলতেই থাকেনযাই 

জ্ঞেস করা হােক, উত্তর একটাইহু। 

বড়ই আচানক ঝড় হয়েছেকি বলেন

পাখি মারা পড়েছে বেশুমারসব ধরনের পাখি মারা পড়েছেএর মধ্যে একটা ডাহুক পাখিও দেখলাম। 

তেঁতুল বনে জোছনা-পর্ব-(২) হুমায়ূন আহমেদ

হুঁ। 

ডাহুক পাখির মাংস অতি স্বাদু। 

আপনি ডাহুক পাখির মাংস কোনােদিন খেয়েছেন? নাখাই নি। 

মতি স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেললডাক্তার সাহেব হুঁ বলা বন্ধ করেছেন। এখন হয়তাে কিছু কথাবার্তা বলবেন। 

ডাহুক পাখি বছরে একদিন অন্ধ হয়ে যায় এটা জানেন

খুবই আচানক ঘটনাবছরে একদিন ডাহুক পাখি চোখে দেখে নাডাহুক পাখি ধরার এই একটাই সুযােগদিনেই ধরা হয়। 

ডাক্তার কৌতূহল চোখে তাকালএকটি বিশেষ শ্রেণীর পাখি বসরে একদিন চোখে দেখে নাএটাতাে বিস্ময়কর ঘটনাঘটনার পেছনে কি সত্যতা আছে ? নাকি এটিও অনেক লােকজ বিশ্বাসের মতাে একটি অপরীক্ষিত লােকজ বিশ্বাস

ডাক্তার সাব বলঝড়ে যেসব পাখি মারা গেছে সেইগুলা খাওয়া কি জায়েজ আছে? তােমার কথা বুঝতে পারছি না। 

ধরেন একটা ডাহুক পাখি গাছের আগায় বসে আছেছররা গুলি দিয়া তারে মারলামএই পাখি খাওয়া জায়েজ আছেআবার ধরেন ঝড়ে পাখিটা মারা গেলসেটা খাওয়া কি জায়েজ আছে

আমি বলতে পারছি না। তবে আমি কোনাে সমস্যা দেখি নাখাবেন ? ডাক্তার বিস্মিত হয়ে বলল, কী খাব

মতি ইতস্তত করে বলল, বাঁশ ঝাড়ের নিচে একটা ডাহুক পাখি মরে পড়ে আছেবেশি করে পিয়াজ রসুন দিয়ে ঝলঝল করে বেঁধে নিয়ে আসি ? খান

আপনে ডাহুক পাখির মাংস খান নাইখেলে মজা পাবেনপাখির মাংস শক্ত হয় ডাহুক পাখির মাংস মােলায়েম ! হাড্ডি সুদ্দা মুখের মধ্যে গলে যায়যদি খানব্যবস্থা করি। 

তেঁতুল বনে জোছনা-পর্ব-(২) হুমায়ূন আহমেদ

ডাহুক পাখি খাব নাআমার কথায় রাগ হয়েছেন

রাগ হই নিরাগ হব কেন ? রাগ হয়ে থাকলে নিজগুণে ক্ষমা করবেনএতবড় একটা ঝড় নিজের চউক্ষে দেখার পর থাইক্যা মাথা ঠিক নাই। কী বলতে কী বলি। 

ডাক্তার জবাব না দিয়ে সাইকেলে উঠে পড়লমতি ফিরে চলল বাঁশঝাড়ের কাছেডাহুক পাখিটার একটা ব্যবস্থা করতে হয়নান্দাইল রােড বাজারের একটা মেয়ে মানুষের কাছে তার যাতায়াত আছেমেয়ে মানুষটার নাম মর্জিনা এই মেয়ের খাওয়া খাদ্য খুব পছন্দ। সবসময় তার মুখে কিছু নাকিছু আছেমুখ নড়ছেইটুকুর টুকুর টুকুরএক বাটি পাখির মাংস বেঁধে নিয়ে গেলে মর্জিনা বড়ই খুশি হবে তুফানের গল্পটাও করা দরকারসামান্য জোড়াতালি দিয়ে সুন্দর করে বলতে হবে আচানক ঘটনা শুনতে পুরুষ মানুষ তেমন পছন্দ করে না, মেয়ে মানুষ করেঝড়ের ঘটনা মতি কীভাবে বলবে মনে মনে গুছাতে শুরু করল 

বুঝলি মর্জিনাআল্লাপাকের কুদরতির শেষ নাইপরিষ্কার দিন। নীলা আসমানহঠাৎ বাজ পড়ার মতাে শব্দদৌড় দিয়া ঘর থাইক্যা বাইর হইয়া দেখি মাথার ওপর দিয়া উড়াজাহাজের মতাে কী জানি যায় শোঁ শোঁ বোঁ বোঁ শব্দ। চউখ কচলাইয়া তাকাইলাম না উড়াজাহাজ না, বটগাছবিরাট বটগাছ আমার বাড়ির ওপরে দিয়া উড়াল মাইরা যাইতেছেঘটনা এইখানে শেষ না । বটগাছে এক মাইয়্যালােক বসাপানের বাটার মতাে গােল মুখ

 ঠোট টকটকা লালমনে হইতাছে এইমাত্র রক্ত খাইয়া আসছেঠোটে রক্ত লাইগ্যা আছেতার পরনে একটা কাপড় দূরের কথা, সুতা পর্যন্ত নাই। 

মর্জিনা গল্পটা পুরাে বিশ্বাস করবে। মেয়ে মানুষের যে স্বভাব বিশ্বাস। করলেও ভাব দেখাবে বিশ্বাস করে নাইমুখ ঝামটা দিয়ে বলবে, আফনে এমন মিছখােরখালি মিছা কথাবটগাছের ওপরে নেংটা মেয়েছেলেছিঃ। 

তেঁতুল বনে জোছনা-পর্ব-(২) হুমায়ূন আহমেদ

মতিকে তখন আল্লাখােদার নামে কীরা কাটতে হবেএতে কিছু পাপ হবে। কোনাে এক জুম্মাবারে মসজিদে গিয়ে তওবা করে পাপ কাটাতে হবে । 

ডাক্তার সারাগ্রাম ঘুরে এখন দাঁড়িয়ে আছে মগড়া খালের কাছেচারদিক অন্ধকার হয়ে গেলেও এই জায়গায় কী করে জানি খানিকটা আলাে আটকে আছেশীতকালে খালে কোনাে পানি থাকে নাএখন আশ্বিন মাস, পায়ের পাতা ডােবার মতাে পানি আছেপাহাড়ি নদীর পানির মতাে এই খালের পানি চকচক করছেমগড়া খাল মূল যে নদী থেকে এসেছে তার পানি ঘােলা অথচ এই খালের পানি সবসময়ই ঝকঝকে পরিষ্কারদেখলেই আজলা ভর্তি পানি নিয়ে চোখে মুখে দিতে ইচ্ছা করে। 

Leave a comment

Your email address will not be published.