পদত্যাগ করলেন অস্ট্রেলিয়া কোচ ড্যারেন লেম্যান।

যেন কলঙ্ক কাঁধে নিয়ে পদত্যাগ করলেন অস্ট্রেলিয়া কোচ ড্যারেন লেম্যান। যারা ক্রিকেট বিশ্বকে শাসন করছে সেই দলের বল টেম্পারিংয়ের মতো ঘটনা ক্রিকেটপ্রেমীরা মোটেও মানতে পারছেন না। সারাবিশ্বে চলছে দলের বিরুদ্ধে চলছে আলোচনা সমালোচনা। তবে সেই দায়ভার শুধু দলের খেলোয়াড়দের উপর নয়, গিয়ে পড়েছে কোচের ঘাঁড়েও।

কেপটাউন টেস্টে বল টেম্পারিংয়ের ঘটনায় ইতোমধ্যেই অস্ট্রেলিয়া দল থেকে নিষিদ্ধ হয়েছেন স্টিভ স্মিথ, ডেভিড ওয়ার্নার এবং ক্যামেরন ব্যানক্রফট। এছাড়া শাস্তি আসার আগেই অধিনায়ক এবং সহ অধিনায়কের পদ থেকে সরে দাড়িয়েছিলেন তারা। আর এই ঘটনায় অবশেষে কোচ ড্যারেন লেম্যানকেও কোচের পদ সরে দাঁড়াতে হলো।

বৃহস্পতিবার অশ্রুসজল নয়নে এক সংবাদ সম্মেলনে পদত্যাগের সিদ্ধান্তের কথা জানান কোচ।

লেম্যান বলেন, সড়ে দাঁড়ানোর জন্য এটাই উপযুক্ত সময়। কেননা দলের এই সংস্কৃতির জন্য আমিও দায়ী এবং আমি কিছুক্ষণের জন্য শুধু নিজের অবস্থানের কথা ভাবছিলাম।

তিনি আরো বলেন, এখন পুরো ঘটনাগুলো আবারো পর্যবেক্ষণ করতে পারে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। দেশবাসীর বিশ্বাস পুনরায় ফিরে পেতে যে পরিবর্তন দরকার সেগুলোও করতে পারে। অন্যান্য অস্ট্রেলিয়ানের মত আমরাও খুব হতাশ পুরো ঘটনা নিয়ে। দল হিসেবে আমরা অনেক মানুষকেই হতাশ করেছি সেজন্য সত্যিই খুব দু:খিত আমরা।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে কেপটাউন টেস্টের তৃতীয় দিনে অজি বোলার ব্যানক্রফটকে কিছু দিয়ে বল ঘষতে দেখা যায়। এই ভিডিওচিত্রটি ক্যামেরায় ধরা পড়ে এবং মাঠের বড় স্ক্রিনে সম্প্রচারিত হয়। এর সঙ্গে সঙ্গেই শুরু হয় বিতর্কের। তবে এখানেই থেমে থাকেনি বিষয়টি, গড়িয়েছে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী পর্যন্ত। তারপর শুরু হয় নিষিদ্ধ আর পদত্যাগের পর্যায়ক্রম।

Leave a comment

Your email address will not be published.