পাখি আমার একলা পাখি-(শেষ)-পর্ব-হুমায়ুন আহমেদ

রূপার গলার স্বর বদলে যাচ্ছেচোখের তারায় অন্য এক ধরনের আলােসে আজ বিশেষ কিছু বলবেসেই বিশেষ কথাগুলি শােনার জন্যে আমি অপেক্ষাকরছিপাখি আমার একলা পাখি রূপী চায়ের কাপ নামিয়ে রেখে ঠোট মুছল, তারপর আগের চেয়েও নিচু গলায় বলল, প্রতিবাদ আমি নিজেও করতে পারতামভণ্ডামী, ভান এইসব আমার ভাল লাগে না

যেখানে এইসব দেখেছি কঠিন গলায় প্রতিবাদ করেছিতােমার মাকথার কোন প্রতিবাদ করতে পারলাম না, কারণ তিনি যা বলেছেন সত্যি বলেছেনএক বিন্দু মিথ্যা নয়। 

পাখি আমার একলা পাখি-(শেষ)-পর্ব-হুমায়ুন আহমেদ

তাতে কিছু যায় আসে নাসবটা শােন তারপর বল, তাতে কিছু যায় আসে নাআমার মা আর্ট স্কুলের ছাত্রী ছিলেনঅহংকারী জেদী একটি মেয়েঅসম্ভব রূপবতীআমি বলেছি না মা’র কিছু কিছু জিনিস আমি পেয়েছিরূপ হচ্ছে তার একটাকিন্তু মা ছিলেন দরিদ্রতাদের পুরাে পরিবারটাই দরিদ্রদুবেলা খাবার সামর্থও এই পরিবারের ছিল না

এমন একটা পরিবারে রূপবতী মেয়ে হয়ে জন্মানাের হাজারো সমস্যামা আর্ট স্কুলের পড়ার খরচ চালাতে পারেন নাঅনাহারের কষ্টও এক সময় অসহ্য বােধ হলএক সময় দেখা গেল ছুটির দিনে নাইট ক্লাবগুলিতে তিনি নাচতে শুরু করেছেনবাড়তি কিছু টাকা আসছে। 

আমি বললাম, থাক এসব| রূপা বলল, থাকবে কেন? আমি তাে বলতে লজ্জা পাচ্ছি নাতুমি শুনতে লজ্জা পাচ্ছ কেন? আমার মা প্রতিটি ঘটনা আমাকে বলেছেনযখন বলেছেন তখন আমার বয়স খুব অল্প

পাখি আমার একলা পাখি-(শেষ)-পর্ব-হুমায়ুন আহমেদ

তিনি বলতে লজ্জা পান নি, আমিও মার কথা শুনে লজ্জা পাইনিতুমি কেন পাবে? মা বলতেন শরীর এবং মন আলাদা আলাদাশরীর অশুচি হলেই মন অশুচি হয় নাএটা হয়ত তিনি নিজেকে সান্ত্বনা দেবার জন্যেই বলতেন। 

| মা ভয়ংকর জীবন বেছে নিয়েছিলেনআমার বাবা তাঁকে সেখান থেকে উদ্ধার করেনবিয়ে করেনদেশে নিয়ে আসেনমাসমস্ত দুঃখ, সমস্ত কষ্ট ভুলিয়ে দিতে চেষ্টা করেনকেমন লাগছে তােমার গল্পটা ?” ভাল?শুধু ভাল ? এটা কি চমৎকার একটা গল্প না ?হ্যা চমৎকার গল্প। 

এই চমৎকার গল্পের একটা ভয়ংকর অংশ আছেসেই অংশটা এখন আমি তােমাকে বলব। 

বাবা যখন আমার মাকে বিয়ে করেন তখন আমার মা অন্তঃসত্তাআমার মা ঠিক জানেন না আমার বাবা কেএইসব কিছুই আমি তােমাকে বলিনিএখনবললাম, কারণ পরিস্থিতি বদলে যাচ্ছেআমার চাচার বাবার সম্পত্তির জন্যে মামলা মােকদ্দমা করবেনএকজন অবৈধ কন্যা বিপুল সম্পত্তি পাবে তা তাে হয় না

পাখি আমার একলা পাখি-(শেষ)-পর্ব-হুমায়ুন আহমেদ

বাবার শরীর অসুস্থতিনি যে দীর্ঘদিন বাইরে থাকেন চিকিৎসার জন্যে থাকেনসম্পত্তি নিয়ে কথাবার্তা বলার সময় এসে গেছে। আমি চুপ করে আছিদেখছি রূপাকেমানুষ কি করে এত সুন্দর হয়

রূপা বলল, আমি এখন যে কথাগুলি বললাম তা কি তুমি তােমার বাবা, মা, ভাইবােন এদের বলতে পারবে

 আমার ধারণা হয়েছিল পারবেআমি এমন একজনকে বিয়ে করতে চেয়েছিলাম যে সবকিছু তুচ্ছ করে আমাকে গ্রহণ করতে পারবেআমার চারপাশে অনেকেই ছিলতিনজনের একটা তালিকা তৈরি করেছিলামতুমি ছিলে দুনম্বরে। 

এক নম্বরে কে ছিল?সফিক ছিল এক নম্বরে। 

পাখি আমার একলা পাখি-(শেষ)-পর্ব-হুমায়ুন আহমেদ

রূপা হাই তুলতে তুলতে বলল, আমি ঘুমুবআমাকে একটু জায়গা দাও তােসে এসে আমার পাশে শুয়ে পড়লঘুমিয়ে পড়ল প্রায় সঙ্গে সঙ্গেআমি সন্ধ্যা পর্যন্ত জেগে তার পাশে বসে রইলামসে গভীর ঘুমে অচেতনঘুমের মধ্যেই 

হাসছে, স্বপ্ন দেখছে হয়ত। 

সন্ধ্যা মিলাবার পর বেরুলামমুনিয়ার স্বামীর সঙ্গে দেখা করতে হবেসেখান থেকে একবার যাব সফিকের কাছেতারপর? তারপর কি আমি জানি নাএকটা সাইকেল থাকলে ভাল হতসাইকেলে করে সারা শহর চক্কর দেয়া যেত। 

Leave a comment

Your email address will not be published.